দ্বিতীয় নাম্বার থেকে সড়ানো গেলোনা এড. সাখাওয়াতের নাম মহানগর বিএনপিতে বিরোধ থেকেই যাচ্ছে

0
8

শীতলক্ষা রিপোর্ট : নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সভাপতির পরের নামটিই হলো এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খানের। এই কমিটির এক নম্বর নামটি হলো সাবেক এমপি এডভোকেট আবুল কালামের, আর দুই নম্বর নামটি হলো নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি সাখাওয়াতের। কিন্তু সাখাওয়াতের নামটি যাতে দুই নম্বরে না থাকে বা তিনি যাতে কমিটির সিনিয়র সহসভাপতি না হতে পারেন এর জন্য চেষ্ঠা তৎবির কম হয়নি। কিন্তু কোনো কাজ হয়নি। নারায়ণগঞ্জের রাজনৈতিক সচেতন মহল মনে করেন এডভোকেট আবুল কালাম, সাখাওয়াৎ হোসেন এবং এটিএম কামাল যদি ঐক্যবদ্ধ থেকে দলের জন্য কাজ করতে পারতেন তাহলে পরিস্থিতি ভিন্ন হতো। কিন্তু আজকাল এদেশের রাজনীতির মূলেই থাকে অনৈক্য ও অবিশ^াস। শুধু তাই নয়, এখন দলগুলি নিজেদের মাঝে এমন ভাবে বিরোধে জড়িয়ে থাকে যে তারা রাজনৈতিক প্রতিপক্ষকে আক্রমন করার পরিবর্তে নিজেদেরকে আক্রমন করা নিয়ে ব্যাস্ত থাকে। এটা বিএনপি ও আওয়ামী লীগ উভয় দলের বেলায় প্রযোয্য। যেমন আওয়ামী লীগেও নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র ডাক্তার সেলিনা হায়াৎ আইভীর সঙ্গে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য একেএম শামীম ওসমানের বিরোধের বিষয়টি এখন নারায়ণগঞ্জবাসীতো বটেই দেশবাসী সবার জানা। শুধু তাই নয়, বছরের পর বছর ধরে তারা দুইজন এই বিরোধে জরিয়ে আছেন এবং নানা ভাবে একে অপরকে ঘায়েল করতে চাইছেন। তারা বাকী জীবন এক সাথে আর কোনো অনুষ্ঠানে বসবেন না বলেও জানা গেছে। কিন্তু বিএনপিতে এতোটা বিরোধ নেই। তারপরেও বিএনপি বিগত তেরো বছর ধরে রাস্ট্র ক্ষমতার বাহিরে রয়েছে। দলটির নেতাকর্মীরা সীমাহীন নিপিড়র নির্যাতনের মধ্য দিয়ে অতিবাহিত করছেন তাদের জীবন। তাই তারা ঐক্যবদ্ধভাবে পথ চলবেন এটাই আশা করে সাধারন মানুষ। কিন্তু সেটা আর হচ্ছে না। মহানগর বিএনপির বেলায় এমনটিই দেখা যাচ্ছে। কালাম-সাখাওয়াত আর কামালের পক্ষ্যে এক সাথে রাজনীতি করা মোটেও আর সম্ভব হবে না। এছাড়া সাখাওয়াতের নাম যথা স্থানে থাকায় তিনি আগের মতোই পৃথক কর্মসূচি করে যেতে উৎসাহী হবেন বলে ধারনা করা হচ্ছে। তবে বিএনপিকে যেভাবে ক্ষমতার বাহিরে রাখা হচ্ছে তাতে যাকে যে স্থানেই রাখা হোক না কেনো তারাযে এখনো এই দলটি করার আগ্রহ হারাননি সেটাই অনেক বড় বিষয় বলে মনে করেন অনেকে। তবে সবাই যদি ঐক্যবদ্ধভাবে সামনে এগুতে পারতেন তাহলে হয়তো পরিস্থিতি ভিন্ন হতো। আর এ কথা শুধু নারায়ণগঞ্জ নয় বরং সারা দেশের বেলায়ই প্রযোয্য বলে মনে করেন অনেকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here